মানুষের ভালোবাসার চেয়ে বড় পুরস্কার আর নেই: কবি অসীম সাহা

কবি অসীম সাহা ও শামীম আজাদ

বাংলাদেশ লেখিকা সংঘের ৪৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী অনুষ্ঠিত হয় সোমবার (২৮ নভেম্বর) জাতীয় জাদুঘরের সুফিয়া কামাল মিলনায়তনে। এই উপলক্ষে সাহিত্যে পদক প্রদান এবং গুণীজন সংবর্ধনার আয়োজন করেছিলো সংঘটি। সাহিত্যের বিভিন্ন শাখায় অবদান রাখায় এবছর বাংলাদেশ লেখিকা সংঘের পদক পেয়েছেন মোট চারজন কবি। পুরস্কারপ্রাপ্তরা হলেন-কবি অসীম সাহা, কবি শামীম আজাদ, কবি মালেকা ফেরদৌস ও কবি নাসরিন রহমান।

এছাড়া কবি তাইবুন নাহার রশীদ স্বর্ণপদক তুলে দেয়া হয় দুজন লেখকের হাতে। চলতি বছর এ পদক পেয়েছেন কথাসাহিত্যিক অধ্যাপক অনামিকা হক লিলি এবং ২০২১ সালে লেখক ঝর্ণা দাস পুরকায়স্থ। পরে পদকপ্রাপ্ত সকল কবি ও সাহিত্যিকরা তাদের অনুভূতি প্রকাশ করেন।

লেখিকা সংঘের পদক হাতে কবি অসীম সাহা ও শামীম আজাদ

পদক পাওয়ার অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে কবি অসীম সাহা বলেন-আমি বাংলা একাডেমির পুরস্কার পেয়েছি ৬৪ বছর বয়সে, একুশে পদক পেয়েছি ৭১ বছর বয়সে। ফলে সেই অর্থে আমার ভিতর কোনও অনুভূতি কাজ করে না। তাছাড়া আরেকটি কথা আছে-আমি মনে করি বাংলা একাডেমি পুরস্কার বলুন, একুশে পদ বলুন, স্বাধীনতা পদক বলুন মানুষের ভালোবাসার চেয়ে বড় পুরস্কার আর কিছু আছে বলে আমি মনে করি না।

তিনি আরও বলেন-কবি না হলে আমি কৃষক হতাম। আমি একসময় কৃষক হতেও চেয়েছিলাম। একজন কৃষক হিসাবে আমার ক্ষেতে সুন্দর করে ধান ফলাতে পারতাম-সেটাই হতো আমার শ্রেষ্ঠ কবিতা। এর চেয়ে বড় কোন চাওয়া কখনই আমার ছিলো না।-

আবেগে আপ্লুত কবি শামীম আজাদ বলেন- লেখিকা সংঘ আজকে একটি দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। তারা আমাকে প্রবাসী কবি বলে নাই। আমি দেশে বিদেশে অনেক পুরস্কার পেয়েছি। পুরস্কার এক ধরনের স্বীকৃতি। তারপরও মনটা আইটাই করতো-কখন বাংলাদেশ থেকে প্রবাসী ট্যাগ ছাড়া আমাকে একটা পুরস্কার কেউ দেবে। লেখিকা সংঘ অনেকগুলো সহসী কাজ করেছে, তাদের অরেকটি সাহসী কাজ হলো তারা পুরস্কার শুধু লেখিকার জন্য রাখেননি , অসীম দা আমার দীর্ঘদিনের সহচর-এবার তিনিও পুরস্কার পেয়েছেন।

কবি নাসরিন রহমান, লেখক অনামিকা হক লিলি ও ঝর্ণা দাস পুরকায়স্থ

লেখিকা সংঘের প্রশংসা করতে গিয়ে তিনি বলেন-তারা শুধু নারী পুরুষ বিভেদ করেনি তাই নয়, তারা সবাইকে সম্মান দেয়।  আরেকটা ব্যাপার লেখিকা সংঘের, তারা দৃষ্টান্ত তৈরি করে দেখিয়েছে-বাংলা ভাষা যতদূর যায় বাংলাদেশ ততদূর যায়, এভাবেই স্বীকৃতি দেয়া উচিত।

ওমেন্স নিউজ ডেস্ক/

লাইক, কমেন্টস, শেয়ার দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন